শান্তশিষ্ট বালক

–সাকি বিল্লাহ্

হে সকল শান্ত শিষ্ট বালক,
বালিকাদের চেয়ে এখনো তুমি ঢের নাবালক !
ডিজিটাল এই যুগের অবাস্তব জগতে,
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের পরতে পরতে,
ফটোশপ আর ক্যামেরার কারসাজিতে,
কাককে বক আর ময়ূরকে দেখায় কাকতাড়ুয়াতে ।।

সুন্দরকে অসুন্দর আর অসুন্দরকে সুন্দর করে,
আমরাই দেখাই মহাবিশ্বের সকল বিস্মৃতিরে ।
সম্যক জ্ঞানে রুদ্ধ করি সব অযাচিত রাগ,
আর ভস্ম করি পুড়িয়ে শত ভাগ ।
তবু তার দ্বারে রহি পড়ে সজ্ঞানে,
শয়নে নিদ্রায় জাগি তার-ই স্মরণে;
কবে যেন কোথায় দেখেছিলাম হঠাৎ,
সেই থেকে কাল হল সকল বিস্বাদ ।

জ্ঞানের পিপাসায় কাতর মস্তিষ্কে,
দিয়েছি শুধু জ্ঞানালোক মর্ত্যকে;
শুধু দেইনি একফোটা প্রনয়ের জল,
হৃদয়ের শত আকুতিরে করে নিস্ফল ।
তবু সবের মুখে শুনি অবারিত বারি,
দিয়েছো যা, তোমারই কল্যাণে তা নিমগ্ন করি ।

হয়ত কোন এক পড়ন্ত সাঁঝবেলায়,
পাখিদের ডানা ক্লান্ত তবু ব্যস্ত পথচলায়;
ভোরের আলো পড়ে চোখের পাতায়,
হয়ত বা জাগাবে না আর তোমায় ।
তাই শান্ত হয়ে, ক্ষান্ত করে দাও সকল অশান্তরে,
প্রকাশ্য দিনালোকে এই সকল নীরেট অন্তরে ।
তুমি হবে মহাপুষ্পীর মান্যবর কোন এক,
তবু সকলের হৃদয় জয়ে তুমি রবে সম্যক ।
কেউ তো তবু বলবে ছিলে এক শান্তবালকে ,
জয় হবে সবার তরে এই মর্ত্যলোকে ।

মন্তব্য করুন..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.