অনলাইন প্রকাশনা
মানুষ হয়ে আরেক মানুষ কেমনে করে খুন

মানুষ হয়ে আরেক মানুষ কেমনে করে খুন

ভাবতে আমার অবাক লাগে, শোনরে বলি শোন,
মানুষ হয়ে আরেক মানুষ কেমনে করে খুন ।
দাবী করি মানুষ মোরা, কাজের বেলায় পশু,
পশুর চেয়েও অধম, হতে বাধেনা আর কিছু।
তোমার ওছিলায় যদি কেহ জীবন ফিরে পায়,
দ্বিমত বন্ধু করিও না, তাকে সহায়তায়।
মানুষ তুমি, তোমার উপর আর যে কেহ নাই,
তোমার দ্বারা কষ্ট পাবে, কেন তোমার ভাই।
ভাইয়ে ভাইয়ে ঝগড়া করে, আছে অনেক ভ্রষ্ট,
রক্তের বাধন ছিন্ন করে চালায় তারা অস্ত্র।
এ দুনিয়ায় আর কত দিন করবা বাহাদুরী,
কখন যেন ঘাটে তুমার ভিড়বে এসে তরী।
শেষ খেয়াতে পার হইতে, আছেনি ভাই ভাড়া ?
নইলে কিন্তু পারঘাটাতেই পরবে তুমি ধরা।
একবারও কি ভাবছ তুমি, দিয়া তোমার মন,
কোথা হতে আসলে তুমি, কোথায় প্রত্যর্পণ।
ভাবতে আমার অবাক লাগে, শোনরে বলি শোন,
মানুষ হয়ে আরেক মানুষ কেমনে করে খুন ।
আর কতকাল খেলবা তুমি ভবের পুতুল খেলা,
পশ্চিমে তাকিয়ে দেখ ডুবছে তোমার বেলা।
তাইতো বলি বন্ধু সকল, করোনা আর অহংকার,
এক দিন তোমার সকল কিছু হবেই চূরমার ।
সময় থাকতে হুঁশিয়ার, কর তোমার মন,
নইলে কিন্তু ছাড়বেনারে  প্রভু চিরন্তন।
ভাবতে আমার অবাক লাগে, শোনরে বলি শোন,
মানুষ হয়ে আরেক মানুষ কেমনে করে খুন।

মোহাম্মাদ সাহিদুল ইসলাম (সিঙ্গাপুর প্রবাসী )
মেইল_ Sahidul_77@yahoo.com
H/P_6584027281

মন্তব্য করুন..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.