রুবাই ৪৪৬-৪৫০ (Rubai 446-450)

রুবাই ৪৪৬-৪৫০
——————————– রমিত আজাদ

৪৪৬।
অপরের পাপ মাপি আর বলি, “পাপীতে জগত ভরা!”
আপনার পাপ মাপিয়া দেখিলে, নিজেই খাইবো ধরা!
আঙুল উঁচিয়ে পাপী-তাপী বলে, কতজনে বলি কথা!
আর্শিতে যদি নিজ পানে চাই, পাপীরে দেখি যে তথা!

৪৪৭।
অন্যের পাপ গুনিয়া গুনিয়া, নিজের পাপেই পুড়ি,
অপরে দুষিয়া পার করি দিন, নিজের দোষেই ঘুরি।
আপন পাপের হিসাব ভুলিয়া, অপরের পাপ ধরি,
দিনশেষে যদি হিসাব মেলাই, নিজের পাপেই মরি!

৪৪৮।
পিতা হইয়াও পুত্রেরে করি বঞ্চিত অধিকার,
পতি হইয়াও পত্নিরে করি দুঃখিনীর পরিবার!
আপনারে লয়ে নিরত থাকিয়া আপনারে করি তুষ্ট,
কাহারা আপন ভাবিনা সেকথা, এতটাই আমি দুষ্ট!

৪৪৯।
বনি-আদমের জাত দেহেতেই পাপ, দিলেও রয়েছে খাদ,
নিজ হাতে কাটা ঘাতী কূপই হইবে, আত্মনাশক ফাঁদ।
যেখানেই যাই ফিরিশতা কাঁধে, লিখিছেন পূণ্য ও পাপ;
যতই করিনা অস্বীকার গুনাহ্‌, আমলনামায় আছে ছাপ।

৪৫০।
মন যদি ভাঙি বান্দার এক, মন ভাঙে বিধাতার!
বান্দা তাহার, দুনিয়া যাহার, সকলি মাখলুক তার!
হানিয়াছি ব্যাথা মাখলুকে এক, কাঁদিবেনা শুধু মাখলুক!

বান্দার সাথে রব-ও কাঁদিবেন, রব-ও পাইবেন দুখ্‌!

রচনাতারিখ: ২৩শে জুলাই, ২০২১ সাল
(পবিত্র ‘ঈদ-উল-আযহা’-র তৃতীয় দিন)
রচনাসময়: রাত ০২টা ০২ মিনিট

Rubai 446-450
———————– Ramit Azad

মন্তব্য করুন..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.