মোহন বাঁশি

মোহন বাঁশি ©…….সহিদুল বলতে পারিস কেন তোরে এত ভালবাসি? তুই যে আমার এই জীবনের মোহন বাঁশি। শত কষ্ট দূর হয়ে যায় দেখলে তোর হাসি, তাইতো তোরে ভালবাসি আমি রাশি রাশি তোর জন্য আনতে পারি আকাশের ঐ তারা, তুইযে আমার স্বপ্ন আশা তুইযে জীবনধারা, তোর মুখের ঐ হাসিতে হই আমি পাগলপারা, শুধু তোর জন্যই হইতে রাজি আমি সর্বহারা। যদি ” ভালবাসি” […]

হে নেত্রী, আপনি আর কাঁদবেন না

হে নেত্রী, আপনি আর কাঁদবেন না ©…….সহিদুল (মনবতার জননী শ্রদ্ধাভাজন প্রিয় নেত্রীর জন্মদিনে নেত্রীকে উৎসর্গীকৃত) ১৯৭৫ সালের কোন একদিন, জার্মানির এক বিমান বন্দরে কাস্টমস কর্মকরতার বিমর্ষ চাহনি, বঙ্গকন্যার বাংলাদেশী পাসপোর্ট দেখে কাস্টমস কর্মকরতা ঘৃণা ভরে বলেছিল, “এতো বড় এক বেইমান জাতি তোমরা! যে মুজিব দিলো তোমাদের স্বাধীনতা, আর সেই মুজিবের রক্তেই রঞ্জিত হয়েছে তোমাদের হাত?” বঙ্গকন্যা সেদিন আর নিজেকে ধরে […]

মোহন বাঁশি

মোহন বাঁশি ©…….সহিদুল বলতে পারিস কেন তোরে এত ভালবাসি? তুই যে আমার এই জীবনের মোহন বাঁশি। শত কষ্ট দূর হয়ে যায় দেখলে তোর হাসি, তাইতো তোরে ভালবাসি আমি রাশি রাশি তোর জন্য আনতে পারি আকাশের ঐ তারা, তুইযে আমার স্বপ্ন আশা তুইযে জীবনধারা, তোর মুখের ঐ হাসিতে হই আমি পাগলপারা, শুধু তোর জন্যই হইতে রাজি আমি সর্বহারা। যদি ” ভালবাসি” […]

হে নেত্রী, আপনি আর কাঁদবেন না ©…….সহিদুল (মনবতার জননী শ্রদ্ধাভাজন প্রিয় নেত্রীর জন্মদিনে নেত্রীকে উৎসর্গীকৃত) ১৯৭৫ সালের কোন একদিন, জার্মানির এক বিমান বন্দরে কাস্টমস কর্মকরতার বিমর্ষ চাহনি, বঙ্গকন্যার বাংলাদেশী পাসপোর্ট দেখে কাস্টমস কর্মকরতা ঘৃণা ভরে বলেছিল, “এতো বড় এক বেইমান জাতি তোমরা! যে মুজিব দিলো তোমাদের স্বাধীনতা, আর সেই মুজিবের রক্তেই রঞ্জিত হয়েছে তোমাদের হাত?” বঙ্গকন্যা সেদিন আর নিজেকে ধরে […]

আমার নাম বাংলাদেশ

ট্যাঙ্ক, কামান আর মর্টারের মুহুর্মুহু আঘাতে আমার নিরস্ত্র সবুজ ঝাঁঝরা বুকের উপর রক্তাক্ত যে মানচিত্র তার নাম বাংলাদেশ। শোষন, অপশাসন ও বঞ্চনার উদর ভেদিয়া সেদিন পৃথিবীর আলো দর্শন করেছিল এক শিশু, যে শিশু, বাহান্নের আগুন ঝরা ফাগুনে, মাতৃ জঠরে, যার ভ্রূণ। এরপর, ছাপ্পান্ন, ছেষট্টি, ঊনসত্তরে গর্ভকোষে বেড়ে উঠা, এক সাগর নিষিক্ত রক্তের স্রোতধারায়, গর্ভিণীর উদরে বুটের প্রহারে প্রহারে যার জন্ম, […]

জান্নাতের চাবি

জান্নাতের চাবি মোহাম্মদ সহিদুল ইসলাম ===================== জান্নাতের চাবি মাগো, মা তুমি বিধির শ্রেষ্ঠ অনুদান, তোমার সেবা করে জীবন আমার হয় যেন অবসান। মা যদি হয় কারো বিজাত অনুসারী, তবু মায়ের, করতে হবে সেবা তোমারি। থাকতে মা-ধন, কর যতন, দিয়া তোমার মনপ্রাণ, জান্নাতের চাবি মাগো, মা তুমি বিধির শ্রেষ্ঠ অনুদান। এই জগতে কত মূর্খ নেয়না মায়ের খবর, হারিয়ে মা, জিয়ারত করে […]

অনন্ত পথের যাত্রী_রেহানা জাব্বারী বলছি

আমি রেহানা ইরানী বলছি, কি! অবাক হচ্ছ? চিনতে পারছ না? হ্যাঁ, অবাক হবারই তো কথা। তোমরা ভেবেছ, ওকে পৃথিবী থেকে ছুড়ে ফেলেছি, সে তো ২৫ অক্টোবর-২০১৪ এর কথা, ও আবার কেমন করে ফিরে আসবে? হ্যাঁ, আমি সেই রেহানা জাব্বারি, আমি সেই রেহানা ইরানী বলছি, যাকে খুনের দায়ে পৃথিবী থেকে বিদায় করে তোমরা দুধে ধোয়া তুলসী সেজেছো। তোমরা পুরুষ, না না, […]

জীবন প্রভাতে

জীবন প্রভাতে

ফুল ভেবে কেউ ভুল করোনা জীবন প্রভাতে, ভুলের ফুলটি গেঁথোনা কেউ মনের মালাতে। এসেছ যেহেতু ফুল কুড়াতে জীবন পুষ্প বাগে, ধারিও মনে, ভাবিও গহীনে ফুল কুড়ানোর আগে। মেকি ফুলের মোহে পড়োনা সত্তা মালঞ্চে, নিখাদ ফুলের সন্ধান নেরে, জীবনের মঞ্চে। পাতার তরী আর কাগজের ফুলে, ছড়াছড়ি আজ পৃথ্বীতলে, মেকির ভীরে কষ্ট হয় আজ আসল চিনতে। ফুল ভেবে কেউ ভুল করোনা জীবন […]

তন্দ্রা আমায় ছেড়ে গেছে

তন্দ্রা আমায় ছেড়ে গেছে

তন্দ্রা আমায় ছেড়ে গেছে সঙ্গী নিঝুম রজনী, নির্ঘুম রাত পোহায়না তো তুমি ছাড়া সজনী। ঘর থেকে বাহিরে যাই বাহির থেকে ঘরে, আমায় দেখে চন্দ্রপ্রভা লুকায় মেঘের পরে। রাত্রি এখন অনেক হইছে নেইতো কেহ সজাগ, তন্দ্রা কেন আমার সাথে হচ্ছে এতো বিরাগ? দক্ষিণের বারান্দায় বসি ঘুম আসেনা বলে, চাঁদনী আর কজ্জল দেখি লুকোচুরি খেলে। ওদের অমন আহ্লাদে ভাসে তোমার নিনরণী, একলা […]

ইতিহাস, সে তো এক বহতা নদী

ইতিহাস, সে তো এক বহতা নদী

ইতিহাস, সে তো এক বহতা নদী, স্বগতিতে বয়ে চলে নিত্য নিরবধি। কেউ যদি চায় ইতিহাসের গতি করতে রোধ, ইতিহাস নেয় তার প্রতি উল্টো প্রতিশোধ। আজকে যারা ইতিহাসকে করতে চাচ্ছে রেপ, ইতিহাসের আস্তাকুরে হবে ওরা নিক্ষেপ। বঙ্কিমচন্দ্রের লেখা হতে, করছি আমি চয়ন, বদলায় মানুষ, অবিচল থাকে প্রজন্মের অয়ন, “জলের যে পথ নিখাত হইয়াছে, জল সেই পথেই যাইবে, সে পথ রোধ কর, […]

বীরের বেশে

বীরের বেশে

কেউবা ভাবে বিদেশ বসে, আসবে দেশে বীরের বেশে! ন্যান্সিরা তাই আছে বসে, বরণ করবেন হেসে হেসে। কেউবা আবার হেসে কয়, বীরের বেশে তারেক নয়, যতই করুক আহাজারি, তিনি একজন ফেরারি। হোক না কেহ মহাদোষী, তবুও সে বাংলাদেশী জন্ম যদি এই দেশে হয় ফিরতে কেন লাগে ভয়? কেউ যদি হয় দেশের দোষী করবে বিচার দেশবাসী, দেশে আসতে বাধা কই? তবে কেন […]

তোমায় পেলেই ধন্য আমি (সহিদীয়া সঙ্গীত_২২)

তোমায় পেলেই ধন্য আমি (সহিদীয়া সঙ্গীত_২২)

অনেক দিন ধরেই আমি তোমায় চিনি চিনি, তোমায় অনেক ভাল লাগে ওগো বিদেশিনী। রাতের ঐ চন্দ্র যেমন চির দিনের চেনা, তেমনি যেন তোমার সাথে ছিল মনের লেনা। মন নিয়ে নাও প্রেম দিয়ে যাও কর আমায় ঋণী, অনেক দিন ধরেই আমি তোমায় চিনি চিনি। লাইলী প্রেমে মজনু যেমন কৃষ্ণে রাধা-রানী, আমারও তো নাইরে বাকী হইতে সন্ন্যাসিনী। চাইনা আমি রাজ সিংহাসন চাইনা […]

শুচিতা মোর চির সাথী

শুচিতা মোর চির সাথী

শুচিতা মোর চির সাথী, সত্য আমার অলঙ্কার। লাথি মারি মিথ্যার মুখে, আঘাত করি বারংবার। মিথ্যা আর গুজবে একদিন, করেছিল বাংলা গ্রাস। এসেছে আজ সত্যের জয়, ভণ্ডদের আজ সর্বনাশ। সত্য পথের পথিক যারা, কে কোথায় আছিস তোরা? সত্যের মালা পর গলে মিথ্যুকরা আজ রসাতলে। বঁচকরা আজ দিশেহারা, যা খুশি তাই বলছে ওরা। ওদের কথায় ওরা ধরা, তাইতো সত্য পাগল পারা। মোহাম্মদ […]

তোর প্রতিভাস (সহিদীয়া সঙ্গীত_১৭)

তোর প্রতিভাস (সহিদীয়া সঙ্গীত_১৭)

তুমি আমার জানরে বন্ধু, তুমি আমার মান, তোমার জন্য সইতে পারি সকল অপমান। তুমি আমার জান… তোমার জন্য বন্ধু আমি হয়েছিলাম নষ্ট, সেই তুমি আজ উল্টো যদি দাও আমারে কষ্ট। বলার কিছু নাইরে বিধি ধৈর্য্য কর দান। তুমি আমার জান… তুমি আমার জানরে বন্ধু, তুমি আমার মান, তোমার জন্য সইতে পারি সকল অপমান।   কষ্টে আমার জীবন গড়া কষ্টে নাইরে […]

রক্তে কেনা

রক্তে কেনা

বাংলা আমার মায়ের ভাষা, একুশ আমার মান। প্রতি বছর তাই দিয়ে যাই, একুশের সম্মান। মায়ের ভাষার তরে যারা দিয়ে গেছে প্রাণ, শ্রদ্ধার সাথে হৃদয়ে দিই সেই শহীদের স্থান। ফেব্রুয়ারীর একুশ তারিখ, যাদের রক্তে গড়া। বিশ্ব তাদের স্মরণ করে, দিয়ে ফুলের তোরা। আন্তর্জাতিক ভাষা দিবস, যাদের রক্তে কেনা। কি দিয়ে শোধাবো মোরা? সেই শহীদের দেনা। রাখতে যারা বাংলার মান, দিয়েছে জীবন, […]